(CLICK ON CAPTION/LINK/POSTING BELOW TO ENLARGE & READ)

Sunday, April 28, 2013

SUDIPTA GUPTA: বর্ধমান, বহরমপুরে শহীদ ছাত্রনেতাকে স্মরণ প্রতিবাদের ভাষা হয়েই বেঁচে থাকবে শহীদ সুদীপ্ত|


বর্ধমান, বহরমপুরে শহীদ ছাত্রনেতাকে স্মরণ প্রতিবাদের ভাষা হয়েই বেঁচে থাকবে শহীদ সুদীপ্ত|

নিজস্ব প্রতিনিধি,গণশক্তি

বর্ধমান, ২৭শে এপ্রিল — সুদীপ্তকে হত্যা করলেও তাঁর আদর্শকে খুন করা যাবে না। সে প্রতিবাদের ভাষা হিসাবেই ছাত্র সমাজের হৃদয়ে বেঁচে থাকবে। শনিবার বর্ধমান টাউনহলে পুলিসী হেফাজতে শহীদ কমরেড সুদীপ্ত গুপ্তকে স্মরণ করে একথা বলেছেন প্রাক্তন ছাত্র আন্দোলনের নেতা পার্থ মুখার্জি।

এদিন সুদীপ্ত’র খুনের বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি জানিয়ে কনভেনশনে এছাড়াও বক্তব্য রাখেন, প্রাক্তন ছাত্রনেতা অপূর্ব চ্যাটার্জি, সংগঠনের জেলা সম্পাদক দীপঙ্কর দে, সভাপতি সুব্রত সিদ্ধান্ত। শোক প্রস্তাব পাঠ করে প্রীতি মাহাতো।

এদিন সুদীপ্ত গুপ্ত’র হত্যার বিচারবিভাগীয় তদন্তের দাবিতে কনভেনশনে ছাত্ররা যাতে না আসতে পারে তাঁর জন্য বিভিন্ন অঞ্চলে হামলা ও হুমকির মুখে পড়তে হয় ছাত্রদের।

কনভেনশনে পার্থ মুখার্জি বলেন, সুদীপ্ত’র এই হত্যাকাণ্ড পাহাড় থেকে সাগর পর্যন্ত কাঁপিয়ে দিয়েছে। গণতন্ত্রের দাবিতে জীবন দিয়ে বাংলার সামনে প্রশ্ন উঠে এসেছে, কেন হত্যা করা হলো সুদীপ্তকে? মুখ্যমন্ত্রী এই ঘটনাকে ‘তুচ্ছ ঘটনা’ বলেছেন, কিন্তু রাজ্যের মানুষ বলছেন এটা কোন্‌ গণতন্ত্র? তিনি বলেন, ছাত্ররা যাতে সকলের জন্য কাজ ও শিক্ষা এই দাবিতে সোচ্চার হতে না পারে তার জন্যই ক্যাম্পাসে রাজনীতি বন্ধ করার কথা বলা হচ্ছে।

অপূর্ব চ্যাটার্জি বলেন, সুদীপ্ত আদর্শের প্রতীক, বাংলার লড়াইয়ের মুখ, ছাত্রদের কাছে প্রেরণার। সমাজতন্ত্রের আদর্শকে এগিয়ে নিয়ে যেতে তাঁকে খুন হতে হলো। গণতন্ত্র ও ছাত্র সংসদের অধিকার রক্ষার জন্য এই শহীদকে মনে রাখবেন বাংলার মানুষ। নীরবতা পালন করে নয়, রাস্তায় নেমেই ছাত্র সমাজকে এই হত্যাকাণ্ডের বিরুদ্ধে লড়াই চালাতে হবে।

No comments:

Post a Comment